সরিষাবাড়ীতে প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে মেয়র পদপ্রার্থী বিদ্যুতের আমন চারা বিতরণ

'কৃষক হাসলে হাসবে দেশ' এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে এই চারা বিতরণ করা হয় বলে জানা যায়

আমাদের দেশ কৃষি প্রধান দেশ। এ দেশের অর্থনীতির চাকা কৃষির উপর নির্ভরশীল। তাই অটুট বিশ্বাসে সকলেই একবাক্যে বলতে পারি “কৃষক হাসলেই হাসবে দেশ,বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ”। 

রবিবার (৬ সেপ্টেম্বর) দুপুর ৩টার দিকে এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে জামালপুরে সরিষাবাড়ী পৌরসভার শহরস্থ শিমলাবাজার এলাকার কৃতিসন্তান,সকলের সুখ-দুঃখের সাথী এবং রাজনীতি অঙ্গনের আস্থাভাজন সহকর্মী ও সহমর্মী, আসন্ন পৌরসভার নির্বাচনে সুযোগ্য মেয়র পদপ্রার্থী মোঃ মঞ্জুরুল ইসলাম বিদ্যুৎ এর উপস্থিতিতে তাঁর নিজস্ব কার্যালয় হতে সাম্প্রতিক চার দফা বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে নাবী জাতের (বি আর ২২) রোপা আমন ধানের চারা বিতরণ করা হয়। উক্ত অনুষ্ঠানে প্রায় একশতাধিক অসহায় গরীব ক্ষুদ্র কৃষকের মধ্যে এই আমন চারা বিতরণ করা হয়েছে। বিতরণকালে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ সেচ্ছাসেবক লীগ সরিষাবাড়ী উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মামুনুর রশীদ ও দপ্তর সম্পাদক আজাহার আলীসহ দলের অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা। অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, বিদ্যুৎ কোন নতুন মুখ নয়। তাঁর পরিচয় তিনি একজন সম্ভ্রান্ত  পরিবারের ছেলে। তিনি সরিষাবাড়ী উপজেলার সাবেক দুইবারের জাতীর সংসদ সদস্য এবং বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ সরিষাবাড়ী উপজেলা শাখার সাবেক সফল সভাপতি ও বীর মুক্তিযোদ্ধা মরহুম আলহাজ্ব আঃ মালেক এর কনিষ্ঠ সন্তান। তিনি সরিষাবাড়ী পৌর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও সরিষাবাড়ী মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সাধারণ সম্পাদক। তার মননশীল চিন্তা চেতনা পৌরবাসীর কল্যাণ বয়ে আনবে বলে অকপটে স্বীকার করেন তাঁর সহযোদ্ধারা। অপরদিকে মেয়র পদপ্রার্থী বিদ্যুতের নিজস্ব অর্থায়নে ক্রয়কৃত আমন ধানের চারা বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের হাতে তুুুলে দেওয়ায় তারা সংকটের সংশয় কিছুটা কাটিয়ে উঠতে পারবেন বলে জানান।

"স্বাধীনতার মহান স্থপতির এক (০১) আদর্শের" তত্ত্বীয় গবেষণাগার কর্তৃক সত্য প্রকাশে বিশ্বস্ত একটি অনলাইন পোর্টাল 'দৈনিক তরঙ্গ বার্তা'