কাজিপুর উপজেলার চরগিরিশের নদী তীরবর্তী সকল বিদ্যালয় বন্যার পানিতে প্লাবিত

বুধবার (১জুলাই) সকালে যমুনার তীরের বিদ্যালয়গুলোতে গিয়ে দেখা যায়, চারদিকে অথৈ পানি। রাস্তা ঘাটসহ আশ পাশের এলাকা গুলো প্লাবিত। এই সময় কাজিপুর উপজেলার চরগিরিশ ইউনিয়নে একটি উচ্চ বিদ্যালয়সহ ৬টি প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্যার পানি উঠে যায়। বিদ্যালয়গুলো হচ্ছে- রাজনাথপুর নিম্ন মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, জোরবাড়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, গুঁয়াখড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দক্ষিণ সালাল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, রাজনাথপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়, সিদ্ধুরআটা প্রাথমিক বিদ্যালয় ও প্রতিবন্ধী বিদ্যালয় সহ বেশ কিছু কিন্ডারগার্টেন। এছাড়াও জেলার অনেক বিদ্যালয় বন্যার পানিতে প্লাবিত হওয়ার খবর পাওয়া যায়।

স্থানীয়রা জানান, উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে বুধবার যমুনার পানি বৃদ্ধি পেয়ে নদীর তীরবর্তী অঞ্চলগুলো প্লাবিত হয়। পানিবন্দি হয়ে পড়ে গোটা উপজেলার প্রায় ৫ হাজার পরিবার। বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে বেশকিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। চরগিরিশ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মালেক বিএসসি এই প্রতিবেদককে জানান, এ ইউনিয়নের ৭টি বিদ্যালয়ে পানি উঠে সকল বিদ্যালয় তলিয়ে গেছে, করোনার কারণে অনেকদিন হলো বিদ্যালয়গুলো বন্ধ আছে বলে জানান তিনি ।

"স্বাধীনতার মহান স্থপতির এক (০১) আদর্শের" তত্ত্বীয় গবেষণাগার কর্তৃক সত্য প্রকাশে বিশ্বস্ত একটি অনলাইন পোর্টাল 'দৈনিক তরঙ্গ বার্তা'