মেহেরপুর শহরে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালিত

মেহেরপুর জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে রবিবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত সদর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালিত হয়।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনাকালে গণপরিবহনে সরকার ঘোষিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে চালকগণ গাড়ি চালাচ্ছে কিনা তা পর্যবেক্ষণ করা হয়।

এ সময় বাসের যাত্রীদের কাছে ভাড়ার বিষয়ে জিজ্ঞাসা করলে তারা জানান, সরকার নির্ধারিত ভাড়া দিয়ে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে তারা যাতায়াত করছেন। যাত্রীদের থেকে বেশি ভাড়া আদায় করা হচ্ছে না।
এছাড়াও বাসস্ট্যান্ডে বিভিন্ন গণপরিবহনের টিকেট কাউন্টারে গিয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরিবহন বাস চালানোর জন্য অনুরোধ করা হয়। নির্ধারিত ভাড়ার চেয়ে বেশি ভাড়া যাতে না নেয় সে বিষয়েও অনুরোধ করা হয়।
ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনাকারী সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ মহিদুল হক জানান, জনসেবা ও জনসচেতনতার জন্য জেলা প্রশাসনের ভ্রাম্যমাণ আদালত নিয়মিত পরিচালিত হবে। সরকার ঘোষিত স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে মেনে চলার জন্য তিনি সকলকে অনুরোধ করেন।

এদিকে একই দিনে জেলা প্রশাসনের সিনিয়র সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এমএম আরাফাত হোসেন ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মিথিলা দাসের নেতৃত্বে শহরের বিভিন্ন এলাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয় এবং স্বাস্থ্যবিধি না মানায় জরিমানা আদায় করা হয়।

"স্বাধীনতার মহান স্থপতির এক (০১) আদর্শের" তত্ত্বীয় গবেষণাগার কর্তৃক সত্য প্রকাশে বিশ্বস্ত একটি অনলাইন পোর্টাল 'দৈনিক তরঙ্গ বার্তা'